আয়োডোমিতি ও আয়োডিমিতি কী?

Mohammad Sadi May 28, 2020 0 Comments

আয়োডোমিতিঃ নির্দিষ্ট আয়নের সাথে কোনো জারক পদার্থের দ্রবণের আয়োডাইড লবণ (KI) এর বিক্রিয়ায় উৎপন্ন আয়োডিনকে প্রমাণ থায়োসালফেট দ্রবণ দ্বারা টাইট্রেশন করার মাধ্যমে মুক্ত আয়োডিনের পরিমাণ নির্ধারণ পদ্ধতিকে আয়োডোমিতি বলে।

নির্দিষ্ট পরিমাণ জারক পদার্থ (যেমন- CuSO₄ এর Cu2+ আয়ন) এর দ্রবণ কণিকেল ফ্লাক্সে নিয়ে এর মধ্যে অধিক পরিমাণ KI যোগ করলে তুল্য পরিমাণ আয়োডিন যুক্ত হয়। পরে যুক্ত আয়োডিনকে প্রমাণ Na₂S₂SO₃ দ্রবন দ্বারা টাইট্রেশন করা হয়। যেমন-

2CuSO₄ + 4KI → Cu₂ + I₂ + 2K₂SO₄

2Na₂S₂O₃ + I₂ → Na₂S₄O₆ + 2NaI

আয়োডিমিতিঃ সরাসরি প্রমাণ আয়োডিন দ্রবণের মাধ্যমে থায়োসালফেট, সালফাইট ইত্যাদি বিজারক পদার্থের টাইট্রেশন করার মাধ্যমে এদের পরিমাণ নির্ধারন করার পদ্ধতিকে আয়োডিমিতি বলে। যেমন-

2Na₂S₂O₃ + I₂ → Na₂S₄O₆ + 2NaI

AboutMohammad Sadi

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *